ঢাকা ০৯:২৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ইতালির আরেচ্ছোতে বর্ণাঢ্য একুশে মেলা: মুসলিম কমিউনিটির কবরস্থান বাস্তবায়নের দাবী ফিলিস্তিনিদের পাশে দাঁড়াবে বাংলাদেশ দারিদ্র বিমোচন ফাউন্ডেশন: ফিলিস্তিন ও বাংলাদেশ দূতাবাসে বিশেষ বৈঠক মামুন হাওলাদার প্রবাসে বাংলার সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য ধরে রাখার লক্ষ্যে রোমে বৃহত্তম ঢাকাবাসীর পিঠা উৎসব নতুন তত্ত্ব ও জ্ঞান সৃষ্টি বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল উদ্দেশ্যঃ ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হক ফ্রান্স দর্পণ পত্রিকার সম্পাদকের ভাইয়ের মৃত্যুতে প্যারিসে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত ইপিএস কমিউনিটি ইন ফ্রান্স এর উদ্যোগে মহান বিজয় দিবস পালিত গ্লোবাল জালালাবাদ এসোসিয়েশন ফ্রান্সের নবগঠিত কমিটির আত্মপ্রকাশ ফরাসি নাট্যমঞ্চে বাংলাদেশি শোয়েব বালাগঞ্জে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত রুপালী ব্যাংক লিমিটেড সুলতানপুর শাখার উদ্যোগে প্রকাশ্যে কৃষি ও পল্লী ঋণ বিতরণ অনুষ্ঠিত

কোন কারণ ছাড়াই বালাগঞ্জ নর্থইস্ট কলেজে ছুটি ঘোষণা

  • আপডেট সময় ১২:৫৬:৩২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ জানুয়ারী ২০১৮
  • ১৩৬ বার পড়া হয়েছে

এসএম হেলাল, বালাগঞ্জ : হঠাৎ করে কোন কারণ ছাড়া বালাগঞ্জ নর্থইস্ট কলেজে ছুটি ঘোষণাকে কেন্দ্র করে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। এনিয়ে কলেজ অধ্যক্ষ মো. মোস্তফা মিয়া ও ভূমিদাতা সদস্য মো. সাইস্তা মিয়ার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সভা করেছেন কলেজ প্রতিষ্ঠাতারা। বিষয়টি নিয়ে অপ্রীতিকর ঘটনা জন্ম দেয়ার আশংকা তৈরি হয়েছে বলে জানিয়েছেন এলাকাবাসী। জানাগেছে, পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি অনুযায়ী গত শনিবার কলেজের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও সাবেক পশ্চিম গৌরীপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. তেরা মিয়া, কলেজের উদ্যোক্তা ও প্রতিষ্ঠাতা আব্দুল মতিন এবং প্রতিষ্ঠাতা সদস্য প্রবাসী মো. সাইস্তা মিয়া যুক্তরাজ্য থেকে দেশে ফিরে বালাগঞ্জ ওসমানীনগর এডুকেশন ট্রাস্টের পক্ষ থেকে শিক্ষার্থীদের মধ্যে বৃত্তি প্রদানের কথা ছিল। কিন্তু কোন কারণ ছাড়া সকাল ১১টার দিকে হঠাৎ কলেজ কর্তৃপক্ষ তাৎক্ষণিক ছুটির ঘোষণা দিয়ে মূল ফটকসহ সকল কক্ষে তালা ঝুলিয়ে দেন। বৃত্তির চেক বিতরণে প্রতিষ্ঠাতারা এসে কলেজ বন্ধ দেখে অধ্যক্ষের সাথে যোগাযোগের চেষ্ঠা করে ব্যর্থ হন। এ সময় উপস্থিত এলাকাবাসী ক্ষোব্ধ হয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শণ করলে চারদিকে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় কলেজ ফটকে তাৎক্ষণিক প্রতিবাদ সভাও করেন উপস্থিত জনতা। খবর পেয়ে অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে ঘটনাস্থলে পুলিশ ঘটনা স্থলে উপস্থিত হয়। প্রতিবাদ সভায় প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও সাবেক পশ্চিম গৌরীপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. তেরা মিয়া বলেন, এলাকায় শিক্ষা প্রসারের লক্ষে আমরা ১কোটি ৯০ লাখ টাকা ব্যয়ে এ কলেজ প্রতিষ্ঠা করেছি। তিনি অভিযোগ করে বলেন, নশিওর পুর গ্রামের মো. সাইস্থা মিয়ার পরিবারের পক্ষ থেকে একখন্ড জমি দানের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ভুমিদাতা তালিকায় নাম লেখান। কিন্তু বিভিন্ন অজুহাতে সেই জায়গা এখনো কলেজের নামে রেজিষ্টার করে দেননি। বর্তমানে তিনি একক আধিপত্য বিস্তারের লক্ষে বিভিন্ন কোট কৌশল ও কলেজ সংশ্লিষ্টদের উপর মামলা হামলা চালিয়ে যাচ্ছেন। কলেজের উদ্যোক্তা ও প্রতিষ্ঠাতা আব্দুল মতিন জানান, পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি থাকার পরও অধ্যক্ষ কলেজ হঠাৎ বন্ধ করে গেলেন। এলাকাবাসী জানেন এ প্রতিষ্ঠানে কার কি অবদাান রয়েছে। শিক্ষার্থীদের কথা মাথায় রেখে শিক্ষার পরিবেশ তৈরী জন্য তিনি সকলের সহযোগীতা কামনা করেন। প্রতিবাদ সভায় উপস্থিত ছিলেন নর্থইস্ট বালাগঞ্জ কলেজের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা যুক্তরাজ্য প্রবাসী মো. সাইস্তা মিয়া, অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা আব্দুল কাদির, গহরপুর এসোসিয়েশনের সভাপতি মো. আবুল মিয়া, কলেজ নির্বাহী কমিটির সদস্য হাবিবুর রহমান নেফুর, আবু সুফিয়ান সাকিব, অভিভাবক মো. ফারুক মিয়া, আব্দুল বাছিত, সমাজকর্মী মুজিবুর রহমান, মুক্তিযুদ্ধা ইসকন্দা আলী মেম্বার, জুয়েল আহমদ, রনক আহমদ প্রমুখ। এ ব্যাপারে কলেজের অধ্যক্ষ মো. মোস্তফা মিয়া জানান, বর্তমানে যারা কলেজ পরিচালনা করছেন তাদের নির্দেশনা মোতাবেক অনাকাংখিত ঘটনা এড়াতে কলেজ তাৎক্ষনিক ছুটি ঘোষনা করা হয়েছে। বালাগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ এসএম জালাল উদ্দিন বলেন, কলেজ কর্তৃপক্ষের অভ্যান্তরীণ কোন্দল কারণে অনাকাংখিত ঘটনা এড়াতে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আমরা উপস্থিত হয়ে পরিস্তি তি নিয়ন্ত্রণে রাখতে চেষ্ঠা করি।

ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

লক ডাউন পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলায় ফ্রান্সে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি

যুক্তরাজ্যে করোনার মধ্যেই শিশুদের মাঝে নতুন রোগের হানা

ইতালির আরেচ্ছোতে বর্ণাঢ্য একুশে মেলা: মুসলিম কমিউনিটির কবরস্থান বাস্তবায়নের দাবী

কোন কারণ ছাড়াই বালাগঞ্জ নর্থইস্ট কলেজে ছুটি ঘোষণা

আপডেট সময় ১২:৫৬:৩২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ জানুয়ারী ২০১৮

এসএম হেলাল, বালাগঞ্জ : হঠাৎ করে কোন কারণ ছাড়া বালাগঞ্জ নর্থইস্ট কলেজে ছুটি ঘোষণাকে কেন্দ্র করে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। এনিয়ে কলেজ অধ্যক্ষ মো. মোস্তফা মিয়া ও ভূমিদাতা সদস্য মো. সাইস্তা মিয়ার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সভা করেছেন কলেজ প্রতিষ্ঠাতারা। বিষয়টি নিয়ে অপ্রীতিকর ঘটনা জন্ম দেয়ার আশংকা তৈরি হয়েছে বলে জানিয়েছেন এলাকাবাসী। জানাগেছে, পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি অনুযায়ী গত শনিবার কলেজের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও সাবেক পশ্চিম গৌরীপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. তেরা মিয়া, কলেজের উদ্যোক্তা ও প্রতিষ্ঠাতা আব্দুল মতিন এবং প্রতিষ্ঠাতা সদস্য প্রবাসী মো. সাইস্তা মিয়া যুক্তরাজ্য থেকে দেশে ফিরে বালাগঞ্জ ওসমানীনগর এডুকেশন ট্রাস্টের পক্ষ থেকে শিক্ষার্থীদের মধ্যে বৃত্তি প্রদানের কথা ছিল। কিন্তু কোন কারণ ছাড়া সকাল ১১টার দিকে হঠাৎ কলেজ কর্তৃপক্ষ তাৎক্ষণিক ছুটির ঘোষণা দিয়ে মূল ফটকসহ সকল কক্ষে তালা ঝুলিয়ে দেন। বৃত্তির চেক বিতরণে প্রতিষ্ঠাতারা এসে কলেজ বন্ধ দেখে অধ্যক্ষের সাথে যোগাযোগের চেষ্ঠা করে ব্যর্থ হন। এ সময় উপস্থিত এলাকাবাসী ক্ষোব্ধ হয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শণ করলে চারদিকে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় কলেজ ফটকে তাৎক্ষণিক প্রতিবাদ সভাও করেন উপস্থিত জনতা। খবর পেয়ে অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে ঘটনাস্থলে পুলিশ ঘটনা স্থলে উপস্থিত হয়। প্রতিবাদ সভায় প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও সাবেক পশ্চিম গৌরীপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. তেরা মিয়া বলেন, এলাকায় শিক্ষা প্রসারের লক্ষে আমরা ১কোটি ৯০ লাখ টাকা ব্যয়ে এ কলেজ প্রতিষ্ঠা করেছি। তিনি অভিযোগ করে বলেন, নশিওর পুর গ্রামের মো. সাইস্থা মিয়ার পরিবারের পক্ষ থেকে একখন্ড জমি দানের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ভুমিদাতা তালিকায় নাম লেখান। কিন্তু বিভিন্ন অজুহাতে সেই জায়গা এখনো কলেজের নামে রেজিষ্টার করে দেননি। বর্তমানে তিনি একক আধিপত্য বিস্তারের লক্ষে বিভিন্ন কোট কৌশল ও কলেজ সংশ্লিষ্টদের উপর মামলা হামলা চালিয়ে যাচ্ছেন। কলেজের উদ্যোক্তা ও প্রতিষ্ঠাতা আব্দুল মতিন জানান, পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি থাকার পরও অধ্যক্ষ কলেজ হঠাৎ বন্ধ করে গেলেন। এলাকাবাসী জানেন এ প্রতিষ্ঠানে কার কি অবদাান রয়েছে। শিক্ষার্থীদের কথা মাথায় রেখে শিক্ষার পরিবেশ তৈরী জন্য তিনি সকলের সহযোগীতা কামনা করেন। প্রতিবাদ সভায় উপস্থিত ছিলেন নর্থইস্ট বালাগঞ্জ কলেজের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা যুক্তরাজ্য প্রবাসী মো. সাইস্তা মিয়া, অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা আব্দুল কাদির, গহরপুর এসোসিয়েশনের সভাপতি মো. আবুল মিয়া, কলেজ নির্বাহী কমিটির সদস্য হাবিবুর রহমান নেফুর, আবু সুফিয়ান সাকিব, অভিভাবক মো. ফারুক মিয়া, আব্দুল বাছিত, সমাজকর্মী মুজিবুর রহমান, মুক্তিযুদ্ধা ইসকন্দা আলী মেম্বার, জুয়েল আহমদ, রনক আহমদ প্রমুখ। এ ব্যাপারে কলেজের অধ্যক্ষ মো. মোস্তফা মিয়া জানান, বর্তমানে যারা কলেজ পরিচালনা করছেন তাদের নির্দেশনা মোতাবেক অনাকাংখিত ঘটনা এড়াতে কলেজ তাৎক্ষনিক ছুটি ঘোষনা করা হয়েছে। বালাগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ এসএম জালাল উদ্দিন বলেন, কলেজ কর্তৃপক্ষের অভ্যান্তরীণ কোন্দল কারণে অনাকাংখিত ঘটনা এড়াতে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আমরা উপস্থিত হয়ে পরিস্তি তি নিয়ন্ত্রণে রাখতে চেষ্ঠা করি।