ঢাকা ০৮:৪৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ইতালির আরেচ্ছোতে বর্ণাঢ্য একুশে মেলা: মুসলিম কমিউনিটির কবরস্থান বাস্তবায়নের দাবী ফিলিস্তিনিদের পাশে দাঁড়াবে বাংলাদেশ দারিদ্র বিমোচন ফাউন্ডেশন: ফিলিস্তিন ও বাংলাদেশ দূতাবাসে বিশেষ বৈঠক মামুন হাওলাদার প্রবাসে বাংলার সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য ধরে রাখার লক্ষ্যে রোমে বৃহত্তম ঢাকাবাসীর পিঠা উৎসব নতুন তত্ত্ব ও জ্ঞান সৃষ্টি বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল উদ্দেশ্যঃ ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হক ফ্রান্স দর্পণ পত্রিকার সম্পাদকের ভাইয়ের মৃত্যুতে প্যারিসে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত ইপিএস কমিউনিটি ইন ফ্রান্স এর উদ্যোগে মহান বিজয় দিবস পালিত গ্লোবাল জালালাবাদ এসোসিয়েশন ফ্রান্সের নবগঠিত কমিটির আত্মপ্রকাশ ফরাসি নাট্যমঞ্চে বাংলাদেশি শোয়েব বালাগঞ্জে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত রুপালী ব্যাংক লিমিটেড সুলতানপুর শাখার উদ্যোগে প্রকাশ্যে কৃষি ও পল্লী ঋণ বিতরণ অনুষ্ঠিত

প্যারিসে খালেদ মহিউদ্দিনের সম্মানে ফ্রান্স দর্পণের ইফতার পার্টিঃ বক্তব্যের সূত্র ধরে প্রাণবন্ত আলোচনা

  • আপডেট সময় ১০:১৪:১৩ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১০ এপ্রিল ২০২২
  • ৮৩ বার পড়া হয়েছে

Warning: Attempt to read property "post_excerpt" on null in /home/u305720254/domains/francedorpan.com/public_html/wp-content/themes/newspaper-pro/template-parts/common/single_two.php on line 117

নজমুল কবিরঃ

জার্মান ভিত্তিক চ্যানেল ডয়েচেভেলে’র বাংলা বিভাগের প্রধান জনপ্রিয় সাংবাদিক খালেদ মহিউদ্দিন কোথাও উপস্থিত থাকবেন, আর একটি চমৎকার আলোচনা থাকবে না তা কি হয়! কারন সাংবাদিক খালেদ মহিউদ্দিনকে চিনেন না এমন লোক বাংলাদেশে খুঁজে পাওয়া যাবে না। তিনি চমৎকার করে, গুছিয়ে প্রাসঙ্গিক বিষয়টিকে এমন একটি জায়গায় নিয়ে যেতে পারেন যা দর্শক-শ্রোতাকে সম্মোহিত করে রাখবেই। তেমন একজন সাংবাদিককে, প্রিয় ব্যক্তিত্বকে ‘ফ্রান্স দর্পণ’ পত্রিকার উদ্যোগে কাছে পেয়ে তিনি নিজেও যেমন উচ্ছসিত, উপস্থিত অন্যান্য সবাই আরো বেশিমাত্রায় আপ্লুত। অনির্ধারিত আলোচনায় তাই হয়ে ওঠে একটি গঠনমূলক যুক্তি-পাল্টা যুক্তির চমৎকার উপস্থাপন। সন্ধ্যাটি (৯ এপ্রিল, শনিবার) তাই আর কেবল ইফতারেই সীমাবদ্ধ থাকেনি।

ফ্রান্স দর্পণ নির্বাহী সম্পাদক ফেরদৌস করিম আখঞ্জির সাথে অতিথিরা ইফতার করছেন

আলোচনার সূত্রপাত সাংবাদিক খালেদ মহিউদ্দিনের একটি কৌতুহলী প্রশ্ন থেকে। প্রশ্নটি ছিলো, ‘এই যে আমাদের প্রবাসজীবন। দীর্ঘ বছর প্রবাসে কাটিয়ে দেয়ার পর কখনও কী নিজ দেশে ফিরে যেতে, দেশে গিয়ে স্থায়ীভাবে বসবাস করতে মন চায় কিনা।’ (আমার স্মরণশক্তি খুবই দুর্বল, ভুলও হতে পারে। তবে প্রশ্নটির ধরন এমনই ছিলো।) ব্যাস, খুবই মামুলীধরনের প্রশ্নে যে, এত বিষয় উঠে আসবে তা হয়তো প্রশ্নকর্তা নিজেও জানতেন না!

ইফতারে আগত অতিথিদের একাংশ

আলোচনায় অংশ নেয়া সবার বক্তব্যেই বাংলাদেশের অর্থনীতি, রাজনীতি, আইনশৃঙ্খলা, সামাজিক অবক্ষয়, নিরাপত্তাহীনতা, দায়বদ্ধতার নিরিখে নাগরিক হিসেবে আমাদের অবক্ষয় ইত্যাদি উঠে এসেছে। প্রবাসে জীবনের একটি বড় এবং দীর্ঘ সময় কাটিয়ে বাংলাদেশে থিতু হওয়ার ভেতরে যে কত ধরনের চ্যালেঞ্জ আছে তা চমৎকারভাবে উঠে এসেছে। আমাদের রাজনৈতিক আদর্শহীনতা, দুর্নীতিকে যাপিত জীবনের সাথে খাপ খাইয়ে নেয়া, ভেঙে পড়া আইনশৃঙ্খলা, চিরায়ত সামাজিক বন্ধনে শৈথিল্য – দেশের এমন বিধ্বস্ত চিত্র পরিবর্তনে নাগরিক হিসেবে আমাদের কর্তব্যকে মূল্যায়ন না করে রাষ্ট্র যন্ত্রে সমাসীন রাজনৈতিক নেতৃত্বকে ব্যর্থতার দায় চাপাবার সরল সমীকরন খুঁজতে থাকি। এটি আলোচনার জন্য বেশ উপাদেয়, চায়ের কাপে ঝড় নয় সাইক্লোন তোলার প্রচলিত হাতিয়ার। রাজনৈতিক নেতৃত্বকে ব্যর্থ প্রমাণ করার চেষ্টায় আমরা সর্বদা সক্রিয় কিন্তু রাজনীতি তো ব্যক্তিরা মিলেই করে। তাহলে ব্যর্থতা রাজনীতিতে নয়, ব্যক্তির আদর্শহীনতা, ক্ষমতার লোভ, দূর্নীতির বিরুদ্ধে নিজের ইস্পাত-দৃঢ় না থাকা। এর বিপরীত চর্চাতেই সাফল্যের প্রাণ ভোমরার বসবাস। আমাদের সম্মিলিতভাবে সেপথে হাটলেই বাংলাদেশ হয়ে উঠবে সার্থক ‘সোনার বাংলা’।

আলোচনায় যারা অংশ নিয়েছেন তাদের সকলের বক্তব্যের মর্মকথা উপরোক্ত লেখায় উঠে এসেছে।

ফ্রান্স দর্পণের নির্বাহী সম্পাদক ফেরদৌস করিম আখঞ্জীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জার্মানভিত্তিক ‘ডয়েচেভেলে’ এর বাংলা বিভাগের প্রধান সাংবাদিক খালেদ মহিউদ্দিন। বিশেষ অথিতির বক্তব্য রাখেন ডয়েচে ভেলের সিনিয়র রিপোর্টার যোবায়ের আহমেদ, ফ্রান্স আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক দিলোয়ার হোসেন কয়েছ, একুশ উদযাপন পরিষদ ফ্রান্সের আহবায়ক টিএম রেজা, ইপিবিএ ফ্রান্স সভাপতি ফারুক খান, বংগবন্ধু পরিষদ ফ্রান্সের সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল ইসলাম, বৃহত্তর কুমিল্লা জনকল্যান সমিতি, ফ্রান্সের সভাপতি ও ফ্রান্স আওয়ামীলীগের আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক শাহিন আরমান চৌধুরী, স্তা মেরির কাউন্সিলর ও অফিওরার প্রেসিডেন্ট কৌশিক রাব্বানী খান, লিগেল এইড এর চেয়ারম্যান,আজাদ মিয়া, এমডি জাহিদুর রহমান সোহাগ, ফ্রান্স আওয়ামীলীগ নেতা মাহিবুবুল হক কয়েস, অফিওরা শিক্ষক আবির আহমেদ, সাংবাদিক শাহ সুহেল, ফ্রেন্ডস ফুড কর্ণার রেস্টুরেন্টের পরিচালক শেখ মাজেদ প্রমুখ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ফ্রান্স দর্পণ পত্রিকার বার্তা সম্পাদক মোঃ নজমুল কবির।

বক্তারা, এরকম একটি অনুষ্ঠান আয়োজন করায় ফ্রান্স দর্পণ পরিবারকে ধন্যবাদ জানান।

ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

লক ডাউন পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলায় ফ্রান্সে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি

যুক্তরাজ্যে করোনার মধ্যেই শিশুদের মাঝে নতুন রোগের হানা

ইতালির আরেচ্ছোতে বর্ণাঢ্য একুশে মেলা: মুসলিম কমিউনিটির কবরস্থান বাস্তবায়নের দাবী

প্যারিসে খালেদ মহিউদ্দিনের সম্মানে ফ্রান্স দর্পণের ইফতার পার্টিঃ বক্তব্যের সূত্র ধরে প্রাণবন্ত আলোচনা

আপডেট সময় ১০:১৪:১৩ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১০ এপ্রিল ২০২২

নজমুল কবিরঃ

জার্মান ভিত্তিক চ্যানেল ডয়েচেভেলে’র বাংলা বিভাগের প্রধান জনপ্রিয় সাংবাদিক খালেদ মহিউদ্দিন কোথাও উপস্থিত থাকবেন, আর একটি চমৎকার আলোচনা থাকবে না তা কি হয়! কারন সাংবাদিক খালেদ মহিউদ্দিনকে চিনেন না এমন লোক বাংলাদেশে খুঁজে পাওয়া যাবে না। তিনি চমৎকার করে, গুছিয়ে প্রাসঙ্গিক বিষয়টিকে এমন একটি জায়গায় নিয়ে যেতে পারেন যা দর্শক-শ্রোতাকে সম্মোহিত করে রাখবেই। তেমন একজন সাংবাদিককে, প্রিয় ব্যক্তিত্বকে ‘ফ্রান্স দর্পণ’ পত্রিকার উদ্যোগে কাছে পেয়ে তিনি নিজেও যেমন উচ্ছসিত, উপস্থিত অন্যান্য সবাই আরো বেশিমাত্রায় আপ্লুত। অনির্ধারিত আলোচনায় তাই হয়ে ওঠে একটি গঠনমূলক যুক্তি-পাল্টা যুক্তির চমৎকার উপস্থাপন। সন্ধ্যাটি (৯ এপ্রিল, শনিবার) তাই আর কেবল ইফতারেই সীমাবদ্ধ থাকেনি।

ফ্রান্স দর্পণ নির্বাহী সম্পাদক ফেরদৌস করিম আখঞ্জির সাথে অতিথিরা ইফতার করছেন

আলোচনার সূত্রপাত সাংবাদিক খালেদ মহিউদ্দিনের একটি কৌতুহলী প্রশ্ন থেকে। প্রশ্নটি ছিলো, ‘এই যে আমাদের প্রবাসজীবন। দীর্ঘ বছর প্রবাসে কাটিয়ে দেয়ার পর কখনও কী নিজ দেশে ফিরে যেতে, দেশে গিয়ে স্থায়ীভাবে বসবাস করতে মন চায় কিনা।’ (আমার স্মরণশক্তি খুবই দুর্বল, ভুলও হতে পারে। তবে প্রশ্নটির ধরন এমনই ছিলো।) ব্যাস, খুবই মামুলীধরনের প্রশ্নে যে, এত বিষয় উঠে আসবে তা হয়তো প্রশ্নকর্তা নিজেও জানতেন না!

ইফতারে আগত অতিথিদের একাংশ

আলোচনায় অংশ নেয়া সবার বক্তব্যেই বাংলাদেশের অর্থনীতি, রাজনীতি, আইনশৃঙ্খলা, সামাজিক অবক্ষয়, নিরাপত্তাহীনতা, দায়বদ্ধতার নিরিখে নাগরিক হিসেবে আমাদের অবক্ষয় ইত্যাদি উঠে এসেছে। প্রবাসে জীবনের একটি বড় এবং দীর্ঘ সময় কাটিয়ে বাংলাদেশে থিতু হওয়ার ভেতরে যে কত ধরনের চ্যালেঞ্জ আছে তা চমৎকারভাবে উঠে এসেছে। আমাদের রাজনৈতিক আদর্শহীনতা, দুর্নীতিকে যাপিত জীবনের সাথে খাপ খাইয়ে নেয়া, ভেঙে পড়া আইনশৃঙ্খলা, চিরায়ত সামাজিক বন্ধনে শৈথিল্য – দেশের এমন বিধ্বস্ত চিত্র পরিবর্তনে নাগরিক হিসেবে আমাদের কর্তব্যকে মূল্যায়ন না করে রাষ্ট্র যন্ত্রে সমাসীন রাজনৈতিক নেতৃত্বকে ব্যর্থতার দায় চাপাবার সরল সমীকরন খুঁজতে থাকি। এটি আলোচনার জন্য বেশ উপাদেয়, চায়ের কাপে ঝড় নয় সাইক্লোন তোলার প্রচলিত হাতিয়ার। রাজনৈতিক নেতৃত্বকে ব্যর্থ প্রমাণ করার চেষ্টায় আমরা সর্বদা সক্রিয় কিন্তু রাজনীতি তো ব্যক্তিরা মিলেই করে। তাহলে ব্যর্থতা রাজনীতিতে নয়, ব্যক্তির আদর্শহীনতা, ক্ষমতার লোভ, দূর্নীতির বিরুদ্ধে নিজের ইস্পাত-দৃঢ় না থাকা। এর বিপরীত চর্চাতেই সাফল্যের প্রাণ ভোমরার বসবাস। আমাদের সম্মিলিতভাবে সেপথে হাটলেই বাংলাদেশ হয়ে উঠবে সার্থক ‘সোনার বাংলা’।

আলোচনায় যারা অংশ নিয়েছেন তাদের সকলের বক্তব্যের মর্মকথা উপরোক্ত লেখায় উঠে এসেছে।

ফ্রান্স দর্পণের নির্বাহী সম্পাদক ফেরদৌস করিম আখঞ্জীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জার্মানভিত্তিক ‘ডয়েচেভেলে’ এর বাংলা বিভাগের প্রধান সাংবাদিক খালেদ মহিউদ্দিন। বিশেষ অথিতির বক্তব্য রাখেন ডয়েচে ভেলের সিনিয়র রিপোর্টার যোবায়ের আহমেদ, ফ্রান্স আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক দিলোয়ার হোসেন কয়েছ, একুশ উদযাপন পরিষদ ফ্রান্সের আহবায়ক টিএম রেজা, ইপিবিএ ফ্রান্স সভাপতি ফারুক খান, বংগবন্ধু পরিষদ ফ্রান্সের সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল ইসলাম, বৃহত্তর কুমিল্লা জনকল্যান সমিতি, ফ্রান্সের সভাপতি ও ফ্রান্স আওয়ামীলীগের আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক শাহিন আরমান চৌধুরী, স্তা মেরির কাউন্সিলর ও অফিওরার প্রেসিডেন্ট কৌশিক রাব্বানী খান, লিগেল এইড এর চেয়ারম্যান,আজাদ মিয়া, এমডি জাহিদুর রহমান সোহাগ, ফ্রান্স আওয়ামীলীগ নেতা মাহিবুবুল হক কয়েস, অফিওরা শিক্ষক আবির আহমেদ, সাংবাদিক শাহ সুহেল, ফ্রেন্ডস ফুড কর্ণার রেস্টুরেন্টের পরিচালক শেখ মাজেদ প্রমুখ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ফ্রান্স দর্পণ পত্রিকার বার্তা সম্পাদক মোঃ নজমুল কবির।

বক্তারা, এরকম একটি অনুষ্ঠান আয়োজন করায় ফ্রান্স দর্পণ পরিবারকে ধন্যবাদ জানান।