ঢাকা ০৯:৪৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ইতালির আরেচ্ছোতে বর্ণাঢ্য একুশে মেলা: মুসলিম কমিউনিটির কবরস্থান বাস্তবায়নের দাবী ফিলিস্তিনিদের পাশে দাঁড়াবে বাংলাদেশ দারিদ্র বিমোচন ফাউন্ডেশন: ফিলিস্তিন ও বাংলাদেশ দূতাবাসে বিশেষ বৈঠক মামুন হাওলাদার প্রবাসে বাংলার সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য ধরে রাখার লক্ষ্যে রোমে বৃহত্তম ঢাকাবাসীর পিঠা উৎসব নতুন তত্ত্ব ও জ্ঞান সৃষ্টি বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল উদ্দেশ্যঃ ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হক ফ্রান্স দর্পণ পত্রিকার সম্পাদকের ভাইয়ের মৃত্যুতে প্যারিসে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত ইপিএস কমিউনিটি ইন ফ্রান্স এর উদ্যোগে মহান বিজয় দিবস পালিত গ্লোবাল জালালাবাদ এসোসিয়েশন ফ্রান্সের নবগঠিত কমিটির আত্মপ্রকাশ ফরাসি নাট্যমঞ্চে বাংলাদেশি শোয়েব বালাগঞ্জে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত রুপালী ব্যাংক লিমিটেড সুলতানপুর শাখার উদ্যোগে প্রকাশ্যে কৃষি ও পল্লী ঋণ বিতরণ অনুষ্ঠিত

ব্রিটেনে প্রথম মুসলিম নারী মন্ত্রী হিসাবে নিয়োগ পেলেন নুস ঘানি

  • আপডেট সময় ০১:২৮:১৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ২০ জানুয়ারী ২০১৮
  • ৪৬৮ বার পড়া হয়েছে

ব্রিটেন সরকারের পরিবহন বিষয়ক জুনিয়র মন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন ‘ভারতীয় বংশোদ্ভূত’ মুসলিম নারী নুস ঘানি (৪৫)। মুসলিম নারী হিসেবে মন্ত্রী হওয়ার ঘটনা এটাই প্রথম যুক্তরাজ্যে। সহকর্মীদের কাছ থেকে শুভেচ্ছাও পেয়েছেন তিনি।

নতুন বছরে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী টেরিজা মের করা কিছু পরিবর্তনের অংশ হিসেবে পরিবহন মন্ত্রণালয়ের আন্ডার-সেক্রটারির দায়িত্ব দেওয়া হয় নুস ঘানিকে।

দায়িত্ব পাওয়ার পর উল্লাসিত ঘানি টুইটবার্তায় জানান, ‘নতুন দায়িত্ব একইসঙ্গে রোমাঞ্চকর ও কঠিন। ওয়েল্ডেন এলাকায় এমপি নির্বাচনের সময় থেকে আমি পরিবহন বিষয়ে সচেতনতামূলক প্রচারণা চালিয়েছি। মন্ত্রীর দায়িত্বের পাশাপাশি আমি ওয়েল্ডেন এলাকার পক্ষে কাজ করবো এবং এলাকার সেবা করে যাবো।’

পরিবহন মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী ক্রিস গ্রেইলিং বলেন, নুস ঘানির পদোন্নতির মধ্য দিয়ে প্রমাণিত হচ্ছে টোরি পার্টি সবাইকে সুযোগ দেয়। তিনি বলেন, আমাদের দলই প্রথম একজন নারী মুসলিমকে মন্ত্রী হিসেবে নিয়োগ দিল। আমি তাঁকে শুভেচ্ছা জানাই। তাঁর পাশে বসার সুযোগ পেয়ে আমি গর্বিত।

২০১০ সালে বার্মিংহামে কনজারভেটিভ পার্টি থেকে সাধারণ নির্বাচনে অংশ নেওয়ার আগে নুস ঘানি স্বেচ্ছাসেবক সংগঠন যেমন, এইজ ইউকে, ব্রেকথ্রু ব্রেক ক্যানসার ও বিবিসি ওয়ার্ল্ড সার্ভিসে কাজ করেন। ২০১৫ সালে সংসদ নির্বাচনের জন্য রক্ষণশীল দলের প্রথম মুসলিম নারী প্রার্থী হন তিনি।

নুস ঘানির জন্ম বার্মিংহামে। তার বাবা-মা ভারতের কাশ্মীর থেকে ব্রিটিনে পাড়ি দেন।

ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

লক ডাউন পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলায় ফ্রান্সে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি

যুক্তরাজ্যে করোনার মধ্যেই শিশুদের মাঝে নতুন রোগের হানা

ইতালির আরেচ্ছোতে বর্ণাঢ্য একুশে মেলা: মুসলিম কমিউনিটির কবরস্থান বাস্তবায়নের দাবী

ব্রিটেনে প্রথম মুসলিম নারী মন্ত্রী হিসাবে নিয়োগ পেলেন নুস ঘানি

আপডেট সময় ০১:২৮:১৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ২০ জানুয়ারী ২০১৮

ব্রিটেন সরকারের পরিবহন বিষয়ক জুনিয়র মন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন ‘ভারতীয় বংশোদ্ভূত’ মুসলিম নারী নুস ঘানি (৪৫)। মুসলিম নারী হিসেবে মন্ত্রী হওয়ার ঘটনা এটাই প্রথম যুক্তরাজ্যে। সহকর্মীদের কাছ থেকে শুভেচ্ছাও পেয়েছেন তিনি।

নতুন বছরে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী টেরিজা মের করা কিছু পরিবর্তনের অংশ হিসেবে পরিবহন মন্ত্রণালয়ের আন্ডার-সেক্রটারির দায়িত্ব দেওয়া হয় নুস ঘানিকে।

দায়িত্ব পাওয়ার পর উল্লাসিত ঘানি টুইটবার্তায় জানান, ‘নতুন দায়িত্ব একইসঙ্গে রোমাঞ্চকর ও কঠিন। ওয়েল্ডেন এলাকায় এমপি নির্বাচনের সময় থেকে আমি পরিবহন বিষয়ে সচেতনতামূলক প্রচারণা চালিয়েছি। মন্ত্রীর দায়িত্বের পাশাপাশি আমি ওয়েল্ডেন এলাকার পক্ষে কাজ করবো এবং এলাকার সেবা করে যাবো।’

পরিবহন মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী ক্রিস গ্রেইলিং বলেন, নুস ঘানির পদোন্নতির মধ্য দিয়ে প্রমাণিত হচ্ছে টোরি পার্টি সবাইকে সুযোগ দেয়। তিনি বলেন, আমাদের দলই প্রথম একজন নারী মুসলিমকে মন্ত্রী হিসেবে নিয়োগ দিল। আমি তাঁকে শুভেচ্ছা জানাই। তাঁর পাশে বসার সুযোগ পেয়ে আমি গর্বিত।

২০১০ সালে বার্মিংহামে কনজারভেটিভ পার্টি থেকে সাধারণ নির্বাচনে অংশ নেওয়ার আগে নুস ঘানি স্বেচ্ছাসেবক সংগঠন যেমন, এইজ ইউকে, ব্রেকথ্রু ব্রেক ক্যানসার ও বিবিসি ওয়ার্ল্ড সার্ভিসে কাজ করেন। ২০১৫ সালে সংসদ নির্বাচনের জন্য রক্ষণশীল দলের প্রথম মুসলিম নারী প্রার্থী হন তিনি।

নুস ঘানির জন্ম বার্মিংহামে। তার বাবা-মা ভারতের কাশ্মীর থেকে ব্রিটিনে পাড়ি দেন।