ঢাকা ১০:২২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
প্রবাসে বাংলার সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য ধরে রাখার লক্ষ্যে রোমে বৃহত্তম ঢাকাবাসীর পিঠা উৎসব নতুন তত্ত্ব ও জ্ঞান সৃষ্টি বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল উদ্দেশ্যঃ ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হক ফ্রান্স দর্পণ পত্রিকার সম্পাদকের ভাইয়ের মৃত্যুতে প্যারিসে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত ইপিএস কমিউনিটি ইন ফ্রান্স এর উদ্যোগে মহান বিজয় দিবস পালিত গ্লোবাল জালালাবাদ এসোসিয়েশন ফ্রান্সের নবগঠিত কমিটির আত্মপ্রকাশ ফরাসি নাট্যমঞ্চে বাংলাদেশি শোয়েব বালাগঞ্জে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত রুপালী ব্যাংক লিমিটেড সুলতানপুর শাখার উদ্যোগে প্রকাশ্যে কৃষি ও পল্লী ঋণ বিতরণ অনুষ্ঠিত সাজাপ্রাপ্ত এক আসামীকে গ্রেফতার করেছে বালাগঞ্জ থানায় পুলিশ গহরপুরে কৃতি ফুটবলার লায়েক আহমদ সংবর্ধিত; জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে লেখাপড়ার গুরুত্ব অনুভব করেছি

মন্ত্রীপরিষদে পরিবহন আইন অনুমোদন হওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন ইতালি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল

  • আপডেট সময় ০৯:৩৭:৩৯ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১০ অগাস্ট ২০১৮
  • ১১৩ বার পড়া হয়েছে

মিনহাজ হোসেন ইতালীঃ বাংলাদেশের সড়ক নিরাপদ করতে মন্ত্রীপরিষদে পরিবহন আইন অনুমোদন হওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন ইতালি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল।ইতালি আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল মনে করেন এই আন্দোলনে তৃতীয় পক্ষ ঢুকে গেছে। ওই পক্ষ নিজেদের স্বার্থে কোমলমতি এসব শিশুর ক্ষতি করতে পারে । তিনি বলেন, ‘সড়ক দুর্ঘটনায় বন্ধুকে হারানোর ফলে শিক্ষার্থীরা রাস্তায় নেমে এসেছে। দুর্ঘটনাকে কেন্দ্র করে আমাদের শিশুরা রাস্তায় নেমে এসেছে। যেহেতু ছোট ছোট বাচ্চারা এমনকি আমার মন্ত্রী, মিনিস্টার, এমপি তাদের যে যা বলছে, তারা কিন্তু তা মেনে নিচ্ছে। ওদের বাধা দেইনি। কারণ, তাদের অনুভূতি, সেন্টিমেন্ট, আমরা বুঝতে পারি।

এ রকম একজন সহপাঠী মারা গেলে তাদের যে কষ্ট আর কেউ বুঝতে না পারুক আমাদের থেকে বেশি কেউ বুঝবে না। কারণ আমরা তো আমাদের জাতির পিতাকে হারিয়েছি।’ আন্দোলনে তৃতীয় পক্ষ ঢুকে গেছে বলে দাবি করেন । তিনি বলেন, ‘আমরা এখন যেটা দেখতে পাচ্ছি তা আরও ভয়াবহ। আন্দোলনে তৃতীয় পক্ষ চলে এসেছে। সেখানে গাউসিয়া মার্কেট থেকে স্কুল ইউনিফর্ম বিক্রি হয়ে গেছে হঠাৎ করে। পলাশী থেকে আইডি কার্ড তৈরি করা হচ্ছে। ওগুলো কারা নিচ্ছে? এরা কি আদৌ ছাত্র? কখনো মুখে কাপড় বেঁধে, হেলমেট পরে চেহারা ঢেকে ঢুকে পড়ছে। আমি এখন শঙ্কিত স্কুলের ছাত্রছাত্রীদের নিয়ে।’ বর্তমান সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব প্রসঙ্গে ইতালি আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল বলেন, একটা শ্রেণি আছে যাদের কাজ হলো ঘোলাপানিতে মাছ ধরা। যারা চেষ্টা করছে এমন একটা পরিস্থিতিতে তারা কোনো একটা অবস্থান তৈরি করতে পারে কি না। কালকে তারা ফেসবুকে রিউমার (গুজব) দিল। আওয়ামী লীগের অফিসে চারজনের লাশ রাখা হয়েছে। আওয়ামী লীগ অফিসে হামলা হলো, কারা এ হামলা করল। এ অবস্থায় সম্পাদক গুজব ও অপপ্রচারে কান না দিতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘একদল লোক অপপ্রচার চালিয়ে দেশের পরিস্থিতিকে জটিল করে তোলার চেষ্টা করছে। দয়া করে আপনারা কোনো ধরনের গুজবে কান দেবেন না। কোনো মিথ্যা প্রচারে বিভ্রান্ত হবেন না।’

ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

লক ডাউন পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলায় ফ্রান্সে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি

যুক্তরাজ্যে করোনার মধ্যেই শিশুদের মাঝে নতুন রোগের হানা

প্রবাসে বাংলার সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য ধরে রাখার লক্ষ্যে রোমে বৃহত্তম ঢাকাবাসীর পিঠা উৎসব

মন্ত্রীপরিষদে পরিবহন আইন অনুমোদন হওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন ইতালি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল

আপডেট সময় ০৯:৩৭:৩৯ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১০ অগাস্ট ২০১৮

মিনহাজ হোসেন ইতালীঃ বাংলাদেশের সড়ক নিরাপদ করতে মন্ত্রীপরিষদে পরিবহন আইন অনুমোদন হওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন ইতালি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল।ইতালি আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল মনে করেন এই আন্দোলনে তৃতীয় পক্ষ ঢুকে গেছে। ওই পক্ষ নিজেদের স্বার্থে কোমলমতি এসব শিশুর ক্ষতি করতে পারে । তিনি বলেন, ‘সড়ক দুর্ঘটনায় বন্ধুকে হারানোর ফলে শিক্ষার্থীরা রাস্তায় নেমে এসেছে। দুর্ঘটনাকে কেন্দ্র করে আমাদের শিশুরা রাস্তায় নেমে এসেছে। যেহেতু ছোট ছোট বাচ্চারা এমনকি আমার মন্ত্রী, মিনিস্টার, এমপি তাদের যে যা বলছে, তারা কিন্তু তা মেনে নিচ্ছে। ওদের বাধা দেইনি। কারণ, তাদের অনুভূতি, সেন্টিমেন্ট, আমরা বুঝতে পারি।

এ রকম একজন সহপাঠী মারা গেলে তাদের যে কষ্ট আর কেউ বুঝতে না পারুক আমাদের থেকে বেশি কেউ বুঝবে না। কারণ আমরা তো আমাদের জাতির পিতাকে হারিয়েছি।’ আন্দোলনে তৃতীয় পক্ষ ঢুকে গেছে বলে দাবি করেন । তিনি বলেন, ‘আমরা এখন যেটা দেখতে পাচ্ছি তা আরও ভয়াবহ। আন্দোলনে তৃতীয় পক্ষ চলে এসেছে। সেখানে গাউসিয়া মার্কেট থেকে স্কুল ইউনিফর্ম বিক্রি হয়ে গেছে হঠাৎ করে। পলাশী থেকে আইডি কার্ড তৈরি করা হচ্ছে। ওগুলো কারা নিচ্ছে? এরা কি আদৌ ছাত্র? কখনো মুখে কাপড় বেঁধে, হেলমেট পরে চেহারা ঢেকে ঢুকে পড়ছে। আমি এখন শঙ্কিত স্কুলের ছাত্রছাত্রীদের নিয়ে।’ বর্তমান সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব প্রসঙ্গে ইতালি আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান ইকবাল বলেন, একটা শ্রেণি আছে যাদের কাজ হলো ঘোলাপানিতে মাছ ধরা। যারা চেষ্টা করছে এমন একটা পরিস্থিতিতে তারা কোনো একটা অবস্থান তৈরি করতে পারে কি না। কালকে তারা ফেসবুকে রিউমার (গুজব) দিল। আওয়ামী লীগের অফিসে চারজনের লাশ রাখা হয়েছে। আওয়ামী লীগ অফিসে হামলা হলো, কারা এ হামলা করল। এ অবস্থায় সম্পাদক গুজব ও অপপ্রচারে কান না দিতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘একদল লোক অপপ্রচার চালিয়ে দেশের পরিস্থিতিকে জটিল করে তোলার চেষ্টা করছে। দয়া করে আপনারা কোনো ধরনের গুজবে কান দেবেন না। কোনো মিথ্যা প্রচারে বিভ্রান্ত হবেন না।’