ঢাকা ১২:৪০ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
তরুণ উদ্যোক্তা মাসুদ মিয়া-আয়ুব হাসানের যৌথ প্রয়াসের প্রতিষ্ঠান পিংক সিটি নিউ স্টার ফুটবল ক্লাব রতনপুরের সহসভাপতি সাইফুল ইসলাম সংবর্ধিত বালাগঞ্জে শান্তিপুর্ণভাবে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন সম্পন্ন : চমক দেখিয়ে আনহার মিয়া চেয়ারম্যান নির্বাচিত ফ্রান্সে বাংলাদেশি অভিবাসীদের জীবনমান উন্নয়নে ফরাসি জাতীয়তা বিষয়ক সেমিনার অনুষ্ঠিত প্যারিসে Point d’Aide – এইড পয়েন্ট এর নতুন অফিসের উদ্বোধন তরুণ সাহিত্যিক সাদাত হোসাইনকে প্যারিসে সংবর্ধনা দিলো ফ্রান্সপ্রবাসী বাংলাদেশীরা গাজীপুর জেলা সমিতি,ফ্রান্স’র দ্বি বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত : ফারুক খান সভাপতি, জুয়েল সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত কেবল উপবাসের নামই সিয়াম নয়, প্রকৃত মানুষ হওয়ার শিক্ষাই সিয়াম ফ্রান্সে একটি সর্বজন গ্রহণযোগ্য ‘বাংলাদেশ সমিতি’র তাগিদ, একটি প্রস্তাবনা শিশু কিশোরদের নানা ইভেন্ট নিয়ে ইপিএস কমিউনিটি ফ্রান্সের স্বাধীনতা দিবস পালন

৭ মুসলিম দেশের বিরুদ্ধে ট্রাম্পের ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বাতিলসহ ১৫ নির্বাহী আদেশ বাইডেনের

  • আপডেট সময় ০২:৪৩:৪৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২১
  • ১৩৯ বার পড়া হয়েছে

Warning: Attempt to read property "post_excerpt" on null in /home/u305720254/domains/francedorpan.com/public_html/wp-content/themes/newspaper-pro/template-parts/common/single_two.php on line 117

মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ ৭টি দেশের ওপর সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের নিষেধাজ্ঞা বাতিল করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। বুধবার তিনি শপথ নেয়ার অল্প পরেই এ বিষয়ক নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন। এদিন তিনি কমপক্ষে ১৫টি নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন। এর মধ্যে রয়েছে মেক্সিকো সীমান্তে দেয়াল নির্মাণ, জলবায়ু পরিবর্তন ও স্বাস্থ্য সংক্রান্ত। বার্তা সংস্থা রয়টার্স বলেছে, বুধবার শপথ নেয়ার কিছু সময় পরে যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ওভাল অফিসে ছুটে যান। সেখানে তার পাশে উপস্থিত ছিলেন ভাইস প্রেসিডেন্ট কমালা হ্যারিস। ওভাল অফিসভর্তি সাংবাদিকদের সামনে প্রেসিডেন্ট বাইডেন সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের বেশ কিছু নীতি পরিবর্তনের পক্ষে স্বাক্ষর করেন। এক্ষেত্রে তিনি প্রথম গুরুত্ব দিয়েছেন করোনা মহামারি এবং জলবায়ু পরিবর্তনকে।

তিনি এসব আদেশে স্বাক্ষরের পর উপস্থিত সাংবাদিকদের বলেন, নষ্ট করার মতো সময় নেই হাতে। আমি যেসব নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করছি তা কোভিড সঙ্কটের গতি পরিবর্তনে সহায়ক হবে। জলবায়ু পরিবর্তনের বিরুদ্ধে এমন এক উপায়ে আমরা লড়াই করতে যাচ্ছি, যা এ পর্যন্ত করা হয় নি। আমরা জাতিগত সমতায় কাজ করবো। এ ছাড়া যেসব সম্প্রদায় অবহেলিত রয়েছে তাদের জন্যও কাজ করবো। এসবই হলো আমাদের সূচনামাত্র।
ডেমোক্রেট দল থেকে যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে এ যাবতকালের মধ্যে সবচেয়ে বেশি বয়সী প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। বুধবার শপথ অনুষ্ঠানে অনেক সময়ই মনে হয়েছে তিনি আবেগ ধরে রাখতে পারছেন না। তার মুখে বার বার ধরা দিচ্ছিল সেই আবহ। তিনি শপথ নিয়ে যেসব নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন তার মধ্যে রয়েছে ফেডারেল প্রপার্টিতে এবং ফেডারেল কর্মচারীদের জন্য মুখে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক। করোনাভাইরাস ইস্যুতে সমন্বয় রক্ষার জন্য হোয়াইট হাউজে একটি নতুন অফিস স্থাপন। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে যুক্তরাষ্ট্রকে প্রত্যাহার করে নেয়ার প্রক্রিয়া স্থগিতকরণ। প্যারিস জলবায়ু চুক্তিতে আবার নতুন করে যুক্তরাষ্ট্রকে যুক্ত করার বিষয়ে নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন। দ্রুততার সঙ্গে জলবায়ু পরিবর্তনকে মোকাবিলার একটি আদেশ দিয়েছেন। এক্ষেত্রে কিস্টোন এক্সএল তেলের পাইপলাইন স্থাপনে সাবেক প্রেসিডেন্টের যে অনুমোদন ছিল তা বাতিল করেছেন তিনি। এই পাইপলাইনটি বহুল বিতর্কিত। এ ছাড়া মেক্সিকোর সঙ্গে সীমান্ত দেয়াল নির্মাণের বিষয়ে তহবিল সংগ্রহ নিয়ে ট্রাম্প যে জরুরি ঘোষণা দিয়েছিলেন, তা বাতিল করেছেন বাইডেন। তিনি অভিবাসীদের সমস্যা সমাধানে একটি নির্দেশ দিয়েছেন। এ ছাড়া মুসলিম দেশগুলোর বিরুদ্ধে ট্রাম্প যে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা দিয়েছিলেন, তাও বাতিল করেছেন তিনি।
বাইডেনের ডে ওয়ান বা প্রথম কর্মদিবসে বিপুল পরিমাণ নির্বাহী কর্মকাণ্ডের সবেমাত্র শুরু হলো এর মাধ্যমে। এমনটা জানিয়ে তার প্রেস সেক্রেটারি জেন পসাকি বলেছেন, সামনের দিন ও সপ্তাহগুলোতে আমরা আরো নির্বাহী আদেশ ঘোষণা করবো।

ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

লক ডাউন পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলায় ফ্রান্সে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি

যুক্তরাজ্যে করোনার মধ্যেই শিশুদের মাঝে নতুন রোগের হানা

তরুণ উদ্যোক্তা মাসুদ মিয়া-আয়ুব হাসানের যৌথ প্রয়াসের প্রতিষ্ঠান পিংক সিটি

৭ মুসলিম দেশের বিরুদ্ধে ট্রাম্পের ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বাতিলসহ ১৫ নির্বাহী আদেশ বাইডেনের

আপডেট সময় ০২:৪৩:৪৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২১

মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ ৭টি দেশের ওপর সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের নিষেধাজ্ঞা বাতিল করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। বুধবার তিনি শপথ নেয়ার অল্প পরেই এ বিষয়ক নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন। এদিন তিনি কমপক্ষে ১৫টি নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন। এর মধ্যে রয়েছে মেক্সিকো সীমান্তে দেয়াল নির্মাণ, জলবায়ু পরিবর্তন ও স্বাস্থ্য সংক্রান্ত। বার্তা সংস্থা রয়টার্স বলেছে, বুধবার শপথ নেয়ার কিছু সময় পরে যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ওভাল অফিসে ছুটে যান। সেখানে তার পাশে উপস্থিত ছিলেন ভাইস প্রেসিডেন্ট কমালা হ্যারিস। ওভাল অফিসভর্তি সাংবাদিকদের সামনে প্রেসিডেন্ট বাইডেন সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের বেশ কিছু নীতি পরিবর্তনের পক্ষে স্বাক্ষর করেন। এক্ষেত্রে তিনি প্রথম গুরুত্ব দিয়েছেন করোনা মহামারি এবং জলবায়ু পরিবর্তনকে।

তিনি এসব আদেশে স্বাক্ষরের পর উপস্থিত সাংবাদিকদের বলেন, নষ্ট করার মতো সময় নেই হাতে। আমি যেসব নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করছি তা কোভিড সঙ্কটের গতি পরিবর্তনে সহায়ক হবে। জলবায়ু পরিবর্তনের বিরুদ্ধে এমন এক উপায়ে আমরা লড়াই করতে যাচ্ছি, যা এ পর্যন্ত করা হয় নি। আমরা জাতিগত সমতায় কাজ করবো। এ ছাড়া যেসব সম্প্রদায় অবহেলিত রয়েছে তাদের জন্যও কাজ করবো। এসবই হলো আমাদের সূচনামাত্র।
ডেমোক্রেট দল থেকে যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে এ যাবতকালের মধ্যে সবচেয়ে বেশি বয়সী প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। বুধবার শপথ অনুষ্ঠানে অনেক সময়ই মনে হয়েছে তিনি আবেগ ধরে রাখতে পারছেন না। তার মুখে বার বার ধরা দিচ্ছিল সেই আবহ। তিনি শপথ নিয়ে যেসব নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন তার মধ্যে রয়েছে ফেডারেল প্রপার্টিতে এবং ফেডারেল কর্মচারীদের জন্য মুখে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক। করোনাভাইরাস ইস্যুতে সমন্বয় রক্ষার জন্য হোয়াইট হাউজে একটি নতুন অফিস স্থাপন। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে যুক্তরাষ্ট্রকে প্রত্যাহার করে নেয়ার প্রক্রিয়া স্থগিতকরণ। প্যারিস জলবায়ু চুক্তিতে আবার নতুন করে যুক্তরাষ্ট্রকে যুক্ত করার বিষয়ে নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন। দ্রুততার সঙ্গে জলবায়ু পরিবর্তনকে মোকাবিলার একটি আদেশ দিয়েছেন। এক্ষেত্রে কিস্টোন এক্সএল তেলের পাইপলাইন স্থাপনে সাবেক প্রেসিডেন্টের যে অনুমোদন ছিল তা বাতিল করেছেন তিনি। এই পাইপলাইনটি বহুল বিতর্কিত। এ ছাড়া মেক্সিকোর সঙ্গে সীমান্ত দেয়াল নির্মাণের বিষয়ে তহবিল সংগ্রহ নিয়ে ট্রাম্প যে জরুরি ঘোষণা দিয়েছিলেন, তা বাতিল করেছেন বাইডেন। তিনি অভিবাসীদের সমস্যা সমাধানে একটি নির্দেশ দিয়েছেন। এ ছাড়া মুসলিম দেশগুলোর বিরুদ্ধে ট্রাম্প যে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা দিয়েছিলেন, তাও বাতিল করেছেন তিনি।
বাইডেনের ডে ওয়ান বা প্রথম কর্মদিবসে বিপুল পরিমাণ নির্বাহী কর্মকাণ্ডের সবেমাত্র শুরু হলো এর মাধ্যমে। এমনটা জানিয়ে তার প্রেস সেক্রেটারি জেন পসাকি বলেছেন, সামনের দিন ও সপ্তাহগুলোতে আমরা আরো নির্বাহী আদেশ ঘোষণা করবো।