ঢাকা ০৬:৪৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
বালাগঞ্জের হাফিজ মাওলানা সামসুল ইসলাম লন্ডনের university of central Lancashire থেকে মাস্টার্স ডিগ্রী অর্জন করলেন বালাগঞ্জে সাংবাদিকদের সাথে উপ-নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হাজী রফিক আহমদ এর মতবিনিময় দেওয়ানবাজার ইউপি চেয়ারম্যান নাজমুল আলমের পক্ষ থেকে বন্যার্তদের মাঝে খাবার বিতরণ জনকল্যাণ ডেভেলপমেন্ট এসোসিয়েশন ইউকের পক্ষ থেকে উপহার সামগ্রী বিতরণ প্যারিসে অনুষ্ঠিত হলো, ‘রৌদ্র ছায়ায় কবি কন্ঠে কাব্য কথা’ শীর্ষক কবিতায় আড্ডা ফ্রান্স দর্পণ – কমিউনিটি-সংবেদনশীল মুখপত্র এম সি ইন্সটিটিউট ফ্রান্সের সুধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত বিএনপি চেয়ারপারসনের “স্পেশাল এসিস্ট্যান্ট টু দ্য ফরেন এফেয়ার্স” উপদেষ্টা হলেন হাজি হাবিব ইপিএস কমিউনিটি ফ্রান্সের আয়োজনে অনুষ্ঠিত হলো ‘ফেত দ্যো লা মিউজিক ২০২৪ তরুণ উদ্যোক্তা মাসুদ মিয়া-আয়ুব হাসানের যৌথ প্রয়াসের প্রতিষ্ঠান পিংক সিটি

করোনার ট্যাবলেট অনুমোদন দিলো যুক্তরাজ্য

  • আপডেট সময় ০৯:১৮:৩০ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৫ নভেম্বর ২০২১
  • ২৫৭ বার পড়া হয়েছে

Warning: Attempt to read property "post_excerpt" on null in /home/u305720254/domains/francedorpan.com/public_html/wp-content/themes/newspaper-pro/template-parts/common/single_two.php on line 117

বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের চিকিৎসায় মুখে খাওয়ার ওষুধ ‘মলনুপিরাভির’ ট্যাবলেট অনুমোদন দিয়েছে যুক্তরাজ্য। দেশটির ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা বুধবার এই অনুমোদন দেয়। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি এই খবর জানিয়েছে।

সম্প্রতি যারা করোনায় সংক্রমিত বলে শনাক্ত হয়েছেন এবং ঝুঁকিতে রয়েছেন তাদের ‘মলনুপিরাভির’ ট্যাবলেট দিনে দুইবার খেতে দেওয়া হবে।

যুক্তরাষ্ট্রের ওষুধ কোম্পানি মার্ক (এমএসডি নামে যুক্তরাজ্যে পরিচিত) উদ্ভাবিত এই মলনুপিরাভির ট্যাবলেটটি করোনার চিকিৎসায় মুখে খাওয়ার প্রথম অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ।

মূলত ফ্লু’র চিকিৎসার জন্য এই ট্যাবলেট উদ্ভাবন করা হয়েছিল। ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালে দেখা গেছে, এটি সেবনের ফলে করোনা রোগীদের হাসপাতালে ভর্তি বা মৃত্যু অর্ধেক কমাতে সক্ষম হয়েছে।

ব্রিটিশ স্বাস্থ্যমন্ত্রী সাজিদ জাভিদ জানান, এই চিকিৎসা পদ্ধতি ‘গেমচেঞ্জার’। এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, যুক্তরাজ্যের জন্য আজ এক ঐতিহাসিক দিন, বিশ্বে প্রথম দেশ হিসেবে একটি অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ অনুমোদন পেয়েছে, যা করোনার চিকিৎসায় বাসায় সেবন করা যাবে।

যুক্তরাজ্যের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা এমএইচআরএ জানায়, করোনায় আক্রান্ত হালকা থেকে মাঝারি অবস্থার রোগী, যারা স্থূলতা, বেশি বয়স, ডায়াবেটিস বা হৃদরোগের মতো অন্তত একটি গুরুতর ঝুঁকি রয়েছে, তাদের জন্য এই ওষুধের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

সংস্থাটির প্রধান নির্বাহী জুন রেইনে এই চিকিৎসা পদ্ধতিকে করোনার বিরুদ্ধে একটি থেরাপিউটিক অস্ত্র হিসেবে উল্লেখ করেছেন।

ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

লক ডাউন পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলায় ফ্রান্সে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি

যুক্তরাজ্যে করোনার মধ্যেই শিশুদের মাঝে নতুন রোগের হানা

বালাগঞ্জের হাফিজ মাওলানা সামসুল ইসলাম লন্ডনের university of central Lancashire থেকে মাস্টার্স ডিগ্রী অর্জন করলেন

করোনার ট্যাবলেট অনুমোদন দিলো যুক্তরাজ্য

আপডেট সময় ০৯:১৮:৩০ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৫ নভেম্বর ২০২১

বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের চিকিৎসায় মুখে খাওয়ার ওষুধ ‘মলনুপিরাভির’ ট্যাবলেট অনুমোদন দিয়েছে যুক্তরাজ্য। দেশটির ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা বুধবার এই অনুমোদন দেয়। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি এই খবর জানিয়েছে।

সম্প্রতি যারা করোনায় সংক্রমিত বলে শনাক্ত হয়েছেন এবং ঝুঁকিতে রয়েছেন তাদের ‘মলনুপিরাভির’ ট্যাবলেট দিনে দুইবার খেতে দেওয়া হবে।

যুক্তরাষ্ট্রের ওষুধ কোম্পানি মার্ক (এমএসডি নামে যুক্তরাজ্যে পরিচিত) উদ্ভাবিত এই মলনুপিরাভির ট্যাবলেটটি করোনার চিকিৎসায় মুখে খাওয়ার প্রথম অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ।

মূলত ফ্লু’র চিকিৎসার জন্য এই ট্যাবলেট উদ্ভাবন করা হয়েছিল। ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালে দেখা গেছে, এটি সেবনের ফলে করোনা রোগীদের হাসপাতালে ভর্তি বা মৃত্যু অর্ধেক কমাতে সক্ষম হয়েছে।

ব্রিটিশ স্বাস্থ্যমন্ত্রী সাজিদ জাভিদ জানান, এই চিকিৎসা পদ্ধতি ‘গেমচেঞ্জার’। এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, যুক্তরাজ্যের জন্য আজ এক ঐতিহাসিক দিন, বিশ্বে প্রথম দেশ হিসেবে একটি অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ অনুমোদন পেয়েছে, যা করোনার চিকিৎসায় বাসায় সেবন করা যাবে।

যুক্তরাজ্যের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা এমএইচআরএ জানায়, করোনায় আক্রান্ত হালকা থেকে মাঝারি অবস্থার রোগী, যারা স্থূলতা, বেশি বয়স, ডায়াবেটিস বা হৃদরোগের মতো অন্তত একটি গুরুতর ঝুঁকি রয়েছে, তাদের জন্য এই ওষুধের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

সংস্থাটির প্রধান নির্বাহী জুন রেইনে এই চিকিৎসা পদ্ধতিকে করোনার বিরুদ্ধে একটি থেরাপিউটিক অস্ত্র হিসেবে উল্লেখ করেছেন।