ঢাকা ০৯:৩২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
প্রবাসে বাংলার সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য ধরে রাখার লক্ষ্যে রোমে বৃহত্তম ঢাকাবাসীর পিঠা উৎসব নতুন তত্ত্ব ও জ্ঞান সৃষ্টি বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল উদ্দেশ্যঃ ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হক ফ্রান্স দর্পণ পত্রিকার সম্পাদকের ভাইয়ের মৃত্যুতে প্যারিসে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত ইপিএস কমিউনিটি ইন ফ্রান্স এর উদ্যোগে মহান বিজয় দিবস পালিত গ্লোবাল জালালাবাদ এসোসিয়েশন ফ্রান্সের নবগঠিত কমিটির আত্মপ্রকাশ ফরাসি নাট্যমঞ্চে বাংলাদেশি শোয়েব বালাগঞ্জে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত রুপালী ব্যাংক লিমিটেড সুলতানপুর শাখার উদ্যোগে প্রকাশ্যে কৃষি ও পল্লী ঋণ বিতরণ অনুষ্ঠিত সাজাপ্রাপ্ত এক আসামীকে গ্রেফতার করেছে বালাগঞ্জ থানায় পুলিশ গহরপুরে কৃতি ফুটবলার লায়েক আহমদ সংবর্ধিত; জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে লেখাপড়ার গুরুত্ব অনুভব করেছি

কেতসীমায় আবারও সন্ত্রাসী আক্রমনের শিকার বাংলাদেশী তরুন

  • আপডেট সময় ০৯:২৬:১৭ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১ মে ২০১৯
  • ১৭৩৪ বার পড়া হয়েছে

Warning: Attempt to read property "post_excerpt" on null in /home/u305720254/domains/francedorpan.com/public_html/wp-content/themes/newspaper-pro/template-parts/common/single_two.php on line 117

ইল দ্য ফ্রান্সের বিভিন্ন এলাকায় বাংলাদেশীদের উপর আরব-আফ্রিকা বংশদ্ভূত অভিবাসীদের হামলা কিছুতেই থামছে না। সর্বশেষ নিজ আবাসস্থল প্যারিসের পার্শ্ববর্তী ওভারভিলে পৌর এলাকার ক্যাতশোমায় ঔষধ কিনতে ফার্মেসীতে যাওয়ার পথে সন্ত্রাসী (আরব বংশোদ্ভুত) আক্রমনের শিকার হয়েছেন বাংলাদেশী মর্তুজা ফাহিম। তার বাড়ি বাংলাদেশের মুন্সী গঞ্জের শ্রীনগরে। হিংস্র নেকড়ের মতো মোরতুজা ফাহিম মাসুমের উপর ঝাঁপিয়ে পড়ে সন্ত্রাসীরা । উপর্যুপরি কিল ঘুসি ও ভারী বুটের লাথিতে রক্তাক্ত হয়ে পড়ে মাসুম। এসময় জীবন বাঁচাতে অসহায় মাসুম দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন, কারণ নেকড়ের মতো ঝাঁপিয়ে পড়া আরবি ছেলে গুলো ইতিমধ্যে ডান পা ভেঁঙ্গে দিয়েছে।

মার খেয়ে পড়ে কাতরানো মাসুমকে দেখে আশেপাশের লোকজন জরুরি সেবা সার্ভিস পম্পিয়ারকে কল করেন। আঘাত গুরুতর দেখে পম্পিয়ার বাহিনী কল করে দ্রুত মেডিকেল সেবাদানকারী টিম সামুকে। ইতিমধ্যে পুলিশও নিধিরাম সর্দারের মত যথানিয়মে হাজির হয়েছে ঘটনাস্থলে। প্রাথমিক সেবা শেষে সামুর সিদ্ধান্ত অনুযায়ী মাসুমকে উন্নত চিকিৎসা ও পরীক্ষা নিরীক্ষার জন্য নিয়ে যাওয়া হয় হসপিটাল দেলাফন্তেইনের জরুরী বিভাগে। সেখানে এমআরআই ও রেডিওলজির মাধ্যমে ডাক্তাররা নিশ্চিত হয় ভারী বুটের আঘাতে মাসুমের ডান উরুর হাড় ভেঙ্গে গেছে। অপারেশনের কোন বিকল্প নেই।

পরদিন ২৮ এপ্রিল সোমবার সকাল ৮টা৩০ মিনিটে ডাক্তার সার্জারি টাইম দিলেন। ঠিক সময়ে অপারেশন করে মোরতুজা ফাহিম মাসুমকে দেলাফন্তেইন হসপিটালের ১১০৩ নাম্বার কেবিনে রাখা হয়েছে। ফ্রান্সে এখনও আনডকুমেন্টেড মাসুম জানেন না আবার কবে তিনি স্বাভাবিক ভাবে চলাফেরা করতে পারবেন। হায়নার হামলার শিকার হয়ে মাসুমের স্বপ্নগুলো আজ হাসপাতালের কেবিনের চার দেয়ালে বন্দি।

হামলার শিকার মোরতুজা ফাহিম মাসুমের বাড়ি মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগর থানার উত্তর কামার গাঁও গ্রামে।

উল্লেখ্য ফ্রান্সের বিভিন্ন স্থানে বিশেষ করে ইল দো ফ্রঁস বিভাগের প্রতিটি জেলার প্রতিটি ভিলে প্রতিদিনই কোন না কোন জায়গায় বাংলাদেশীদের উপর আরবি কালো ছেলেরা হামলা চালাচ্ছে। কমিউনিটির সাধারণ বাংলাদেশীরা মনে করছেন সকলে ঐক্যবদ্ধ হয়ে এর মোকাবেলা না করলে এটি মহামারি আকার ধারণ করবে এবং একটা সময়ে বাংলাদেশীদের লেজ গুটিয়ে ঘরে বসে থাকা ছাড়া আর কোন উপায় থাকবে না।

সূত্র ইউরোবিডি ২৪ নিউজ

ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

লক ডাউন পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলায় ফ্রান্সে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি

যুক্তরাজ্যে করোনার মধ্যেই শিশুদের মাঝে নতুন রোগের হানা

প্রবাসে বাংলার সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য ধরে রাখার লক্ষ্যে রোমে বৃহত্তম ঢাকাবাসীর পিঠা উৎসব

কেতসীমায় আবারও সন্ত্রাসী আক্রমনের শিকার বাংলাদেশী তরুন

আপডেট সময় ০৯:২৬:১৭ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১ মে ২০১৯

ইল দ্য ফ্রান্সের বিভিন্ন এলাকায় বাংলাদেশীদের উপর আরব-আফ্রিকা বংশদ্ভূত অভিবাসীদের হামলা কিছুতেই থামছে না। সর্বশেষ নিজ আবাসস্থল প্যারিসের পার্শ্ববর্তী ওভারভিলে পৌর এলাকার ক্যাতশোমায় ঔষধ কিনতে ফার্মেসীতে যাওয়ার পথে সন্ত্রাসী (আরব বংশোদ্ভুত) আক্রমনের শিকার হয়েছেন বাংলাদেশী মর্তুজা ফাহিম। তার বাড়ি বাংলাদেশের মুন্সী গঞ্জের শ্রীনগরে। হিংস্র নেকড়ের মতো মোরতুজা ফাহিম মাসুমের উপর ঝাঁপিয়ে পড়ে সন্ত্রাসীরা । উপর্যুপরি কিল ঘুসি ও ভারী বুটের লাথিতে রক্তাক্ত হয়ে পড়ে মাসুম। এসময় জীবন বাঁচাতে অসহায় মাসুম দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন, কারণ নেকড়ের মতো ঝাঁপিয়ে পড়া আরবি ছেলে গুলো ইতিমধ্যে ডান পা ভেঁঙ্গে দিয়েছে।

মার খেয়ে পড়ে কাতরানো মাসুমকে দেখে আশেপাশের লোকজন জরুরি সেবা সার্ভিস পম্পিয়ারকে কল করেন। আঘাত গুরুতর দেখে পম্পিয়ার বাহিনী কল করে দ্রুত মেডিকেল সেবাদানকারী টিম সামুকে। ইতিমধ্যে পুলিশও নিধিরাম সর্দারের মত যথানিয়মে হাজির হয়েছে ঘটনাস্থলে। প্রাথমিক সেবা শেষে সামুর সিদ্ধান্ত অনুযায়ী মাসুমকে উন্নত চিকিৎসা ও পরীক্ষা নিরীক্ষার জন্য নিয়ে যাওয়া হয় হসপিটাল দেলাফন্তেইনের জরুরী বিভাগে। সেখানে এমআরআই ও রেডিওলজির মাধ্যমে ডাক্তাররা নিশ্চিত হয় ভারী বুটের আঘাতে মাসুমের ডান উরুর হাড় ভেঙ্গে গেছে। অপারেশনের কোন বিকল্প নেই।

পরদিন ২৮ এপ্রিল সোমবার সকাল ৮টা৩০ মিনিটে ডাক্তার সার্জারি টাইম দিলেন। ঠিক সময়ে অপারেশন করে মোরতুজা ফাহিম মাসুমকে দেলাফন্তেইন হসপিটালের ১১০৩ নাম্বার কেবিনে রাখা হয়েছে। ফ্রান্সে এখনও আনডকুমেন্টেড মাসুম জানেন না আবার কবে তিনি স্বাভাবিক ভাবে চলাফেরা করতে পারবেন। হায়নার হামলার শিকার হয়ে মাসুমের স্বপ্নগুলো আজ হাসপাতালের কেবিনের চার দেয়ালে বন্দি।

হামলার শিকার মোরতুজা ফাহিম মাসুমের বাড়ি মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগর থানার উত্তর কামার গাঁও গ্রামে।

উল্লেখ্য ফ্রান্সের বিভিন্ন স্থানে বিশেষ করে ইল দো ফ্রঁস বিভাগের প্রতিটি জেলার প্রতিটি ভিলে প্রতিদিনই কোন না কোন জায়গায় বাংলাদেশীদের উপর আরবি কালো ছেলেরা হামলা চালাচ্ছে। কমিউনিটির সাধারণ বাংলাদেশীরা মনে করছেন সকলে ঐক্যবদ্ধ হয়ে এর মোকাবেলা না করলে এটি মহামারি আকার ধারণ করবে এবং একটা সময়ে বাংলাদেশীদের লেজ গুটিয়ে ঘরে বসে থাকা ছাড়া আর কোন উপায় থাকবে না।

সূত্র ইউরোবিডি ২৪ নিউজ